ফরিদগঞ্জ পৌর এলাকার পূর্ব বড়ালী শাহাজান কবির উচ্চ বিদ্যালয় ৪ তলা বিশিষ্ট ১০টি একাডেমিক ভবনের মধ্যে একটির কাজ প্রায় শেষ

ফরিদগঞ্জ পৌর এলাকার পূর্ব বড়ালী শাহাজান কবির উচ্চ বিদ্যালয় ৪ তলা বিশিষ্ট ১০টি একাডেমিক ভবনের মধ্যে একটির কাজ প্রায় শেষ

স্টাফ রিপোর্টার :
ফরিদগঞ্জ পৌর এলাকায় স্থাপিত ২ কোটি ৭৪ লাখ টাকা ব্যয়ে সরকারী ভাবে পূর্ব বড়ালী শাহাজান কবির উচ্চ বিদ্যালয় নামে ৪ তলা বিশিষ্ট নুতন ভবনটি মাথা উচু করে দাঁড়িয়ে আছে। চলতি ডিসেম্ভর মাসের যে কোন দিনে ভবনটি হস্তান্তর করতে শেষ মুহুর্তের কাজ চলছে বলে জানিয়েছেন উক্ত ভবন নির্মানকারী প্রতিষ্ঠানের প্রতিষ্ঠিত ঠিকাদার মোঃ মুরাদ হোসেন পাটওয়ারী। বিদ্যালয়টি প্রতিষ্ঠার প্রায় ১০ বছর পর সরকারি অর্থায়ানে ৪ তলা নতুন ভবন নির্মানের কাজ প্রায় শেষ প্রান্তে।
পূর্ব বড়ালী শাহাজান কবির উচ্চ বিদ্যালয়ের ওই ভবনটি যেন পুরো গ্রামকেই আলোকিত করে তুলেছে। এ নিয়ে স্থানীয়রা বলছে বিদ্যালয়টি প্রতিষ্ঠার পর অল্প কয়েক বছরেই বিদ্যালয়টির নতুন চমক হিসেবে নতুন ভবন পেয়েছে। যা নাকি পুরো গ্রামকেই আলোকিত করে তুলেছে।
সংশ্লিষ্ট সুত্রে জানা গেছে, ফরিদগঞ্জ উপজেলায় একই ভাবে মোট ১০টি ৪তলা ভবনের চলমানের কাজের মধ্যে শাহাজান কবির উচ্চ বিদ্যালয়ের ভবনটি সবার আগে সম্পন্ন হতে যাচ্ছে যেনে শিক্ষার্থী , শিক্ষক ও এলাকাবাসির মধ্যে নুতন উৎসাহ উদ্দীপনা দেখা দিয়েছে। একই আদলে ফরিদগঞ্জের বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ২০১৯-২০২০ অর্থবছরে বরাদ্দ হওয়া মোট ১০টি ভবনের কাজ চলমান বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে।
সংশ্লিষ্ট সুত্রে জানা গেছে, পৌর এলাকায় পূর্ব বড়ালী গ্রামে শিক্ষাবিদ ও সমাজসেবক শাহাজান কবির ওই বিদ্যালয়ের জন্য ১ একর ২শতাংশ ৫৪ শতাংশ জায়গা দান করেছেন। মহান এই ব্যক্তির দান করা জায়গায় তারই নামে শাহাজান কবির উচ্চ বিদ্যালয় নামে ৪ তলা ভবন নির্মানের কাজ শুরু হয়েছে ২০১৯ সালের জুন মাসে। ভবনটি বাস্তবায়নে রয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা অধিদপ্তর ও নির্মানে রয়েছে শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তর চাঁদপুর।
গতকাল সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় ভবনটির শেষ মুহুর্তের কাজ চলছে খুব জোরে সরে। বেশ কয়জন শ্রমিক ভবনটিতে যারযার কাজ নিয়ে ব্যস্ত থাকতে দেখা যায়। এ সময় উপস্থিত থাকা উক্ত ভবনটি নির্মান কাজের প্রতিষ্ঠিত ঠিকাদার কাছিয়াড়া গ্রামের হাজ¦ী আমির হোসেন মাষ্টারের ছেলে মুরাদ হোসেন পাটওয়ারী বলেন, বিশাল আকারের এই ৪ তলা ভবনটিতে উন্নতমানের টাইলস আর মোজাইক পাথর ছাড়াও ভাল মানের ইট বালি সিমেন্ট ও রড লাগানো হয়েছে। বিদ্যালয়টি ডিসেম্ভর মাসের যে কোন তারিখে হস্তান্তর করবো বলে আমি আশা করি। অপর এক প্রশ্নের জবাবে ওই ঠিকাদার আরো বলেন, আমার বাবা হাজ¦ী আমির হোসেন মাষ্টার। আমার কোন কাজে বাবার যেন কোন সুনাম নষ্ট না হয় সেটা সব সময় মাথায় রেখে ভালো কাজই করার চেষ্টা করি।
২০১০ সালে প্রতিষ্ঠিত পূর্ব বড়ালী শাহাজান কবির উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নেছার আহাম্মেদ বলেন, বিদ্যালয়ের নামে শিক্ষাবিদ ও সমাজসেবক শাহাজান কবির মোট ১ একর ৫৪ শতাংশ জায়গা দান করেছেন। নুতন ভবনে যাওয়ার পর পুরনো ভবনটিকে ছাত্রাবাস করার পরিকল্পনা রয়েছে। পূর্ব বড়ালী শাহাজান কবির উচ্চ বিদ্যালয়ের ৪ তলা বিশিষ্ট নতুন একাডেমিক ভবন নির্মানের জন্য শিক্ষাথী , শিক্ষক ও এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে আমরা সবাই দেশের শিক্ষাবান্ধব মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানাই।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

themesbazartvsite-01713478536